শুক্রবার, ১৬ অগাস্ট ২০১৯, ০২:৪৯ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
কালীগঞ্জে বাল্য বিয়ের দায়ে জরিমানা ময়মনসিংহের ভালুকায় যথাযোগ্য মর্যাদায় পালিত হলো জাতীয় শোক দিবস ভালুকায় যুবলীগ নেতার বাসাবাড়িতে অগ্নিকান্ডে ব্যাপক ক্ষতি সাধিত হয়েছে ময়মনসিংহের ভালুকায় ডাকাতিয়া ইউনিয়ন অর্নাস এসোসিয়েশন আয়োজিত ঈদ পুনর্মিলনী ও সংবর্ধনা ঈদের শুভেচ্ছা জানালেন ভেলাগুড়ী ইউপি চেয়ারম্যান মহির উদ্দিন সরকারের পাশাপাশি যুব সমাজকে ডেঙ্গু প্রতিরোধে এগিয়ে আসতে হবে- কাজিম উদ্দিন আহম্মেদ ধনু এমপি ঈদুল আযহার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন এ্যাডভোকেট আঞ্জুমানআরা শাপলা ঈদুল আযহার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন ওসি মোস্তাফিজার রহমান ঈদের শুভেচ্ছা জানালেন সহকারী কমিশনার (ভূমি) আবু সাঈদ ঈদের শুভেচ্ছা জানালেন চন্দ্রপুর ইউনিয়নের কাজী শরিফুল
গাংনীর ভরাট সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষক সংকটে পাঠদান ব্যাহত

গাংনীর ভরাট সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষক সংকটে পাঠদান ব্যাহত

মেহেরপুর প্রতিনিধি : মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার ১০নং ভরাট সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষক সংকটে পাঠদান ব্যাহত হচ্ছে। মাত্র ৩ জন শিক্ষক দিয়ে চলছে বিদ্যালয়ের২শতাধীক শিক্ষার্থীদের পড়ালেখা।বিদ্যালয়ে অবকাঠামোগত সমস্যা না থাকলেও শিক্ষক ¯^ল্পতার কারণে গুণগত ও মানসম্মত শিক্ষাদান করা সম্ভব হয়ে উঠছে না বলে জানান বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক। সরেজমিনে গেলে বিদ্যালয়ের নানা সমস্যা চোখে দৃশ্যমান। বিদ্যালয়টি অবহেলিত । গ্রামের রাস্তাঘাটের অবস্থাও ভাল না। বর্ষাকালে রাস্তায় কাদা পানি থাকায় শিক্ষার্থীরা নিয়মিত স্কুলে যাতায়াত করতে হিমসিম খায়।
প্রধান শিক্ষক ফারুক আহমেদ জানান,উপজেলার অজ পাড়া-গাঁয়ের মধ্যে অবস্থিত হলেও পরিচালনা পর্ষদ, শিক্ষক মন্ডলী ও অভিভাবকদের আন্তরিকতার কারণে অত্র বিদ্যালয়ের লেখাপড়ার মান ভাল। ২শ’ ৫ জন শিক্ষার্থী বিদ্যালয়ে নিয়মিত ক্লাস করে। এবছর পিএসসি পরীক্ষায় ১৪ জন অংশগ্রহণ করে শতভাগ উত্তীর্ণ হয়েছে। বিদ্যালয়ে মাত্র ৪ জন শিক্ষক নিয়োগপ্রাপ্ত রয়েছেন। এর মধ্যে একজন শিক্ষক প্রশিক্ষণে (পিটিআই) রয়েছেন। বর্তমানে মাত্র ৩ জন (একজন মহিলা) শিক্ষক দিয়ে কষ্ট করে পাঠদান করাচ্ছি।আমাদের খুব কষ্ট করতে হয়।৩ জন শিক্ষক দিয়ে ২ শতাধিক শিক্ষার্থীকে পাঠদান করানো কষ্টসাধ্য। আমরা বার বার শিক্ষা অফিসে শিক্ষক নিয়োগেআবেদন নিবেদন করেও কাজ হয়নি।
৫ম শ্রেণির ছাত্র রাসেল জানায়, আমাদের প্রধান শিক্ষকসহ সবাই খুব ভাল।২ শিফটের স্কুলে মাত্র ৩ জন শিক্ষক দিয়ে আমাদের সব ক্লাস ঠিকমত নিতে পারেন না। অভিভাবকরা বলেন, উপজেলার চৌগাছা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে মাত্র ৫০-৬০ জন শিক্ষার্থীর বিপরীতে ১০-১১ জন শিক্ষক দায়িত্বে রয়েছেন। অথচ ভরাট সরকারী বিদ্যালয়ে ৩ জন শিক্ষক দিয়ে পাঠদান করানো হচ্ছে।তিনি আরও বলেন, বিদ্যালয়ের পুরাতন ভবনে একাধিক এনজিও পরিচালিত বিভিন্ন প্রকল্পের শিক্ষা প্রোগ্রাম চলছে।বিদ্যালয়ের বাউন্ডারি প্রাচীর না থাকায় বিদ্যালয়ের আসবাবপত্র ও জানালা দরজা গুলো বহিরাগতরা ভেঙ্গে চুরে ফেলে।
এব্যাপারে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার এহসানুল হাবীব জানান, আমাদের শিক্ষক ¯^ল্পতা রয়েছ্।েঅতি শীঘ্রই শিক্ষক নিয়োগ দেয়া হবে।

সময়ের ধারা নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © somoyerdhara.com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com