সোমবার, ১৯ অগাস্ট ২০১৯, ০৩:২৭ অপরাহ্ন

মা ও পরীক্ষার্থী মেয়ের হাত ভেঙে দিলো বখাটেরা

মা ও পরীক্ষার্থী মেয়ের হাত ভেঙে দিলো বখাটেরা

আশুলিয়ার শিমুলিয়া ইউপি’র উত্তর নাল্লাপোল্লা এলাকায় দাখিল পরীক্ষার্থী মেয়ে ও তার মাকে পিটিয়ে হাত ভেঙে দিয়েছে এক বখাটে। পিটুনিতে ডান হাত ভেঙে যাওয়ায় চলতি দাখিল পরীক্ষায়ও অংশ নিতে পারেনি ওই ছাত্রী।

ঘটনার শিকার ওই পরিবারের পক্ষ থেকে থানায় এ বিষয়ে অভিযোগ দাখিল করলেও কোনো ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে না বলে পুলিশের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছে ভুক্তভোগী পরিবারের সদস্য ও স্থানীয়রা।

সূত্র জানায়, গত ২৮ জানুয়ারি বিকালে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে ওই এলাকার হারুন-অর-রশিদের মেয়ে দাখিল পরীক্ষার্থী হোসনে আরার (১৬) ডান হাত ও তার মা খোদেজা বেগমের (৩৭) বাম হাত পিটিয়ে ভেঙে দেয় একই এলাকার আজেল মিয়ার ছেলে বখাটে আসলাম (২৭)।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে এলাকাবাসী জানায়, বখাটে আসলাম নিজেকে স্থানীয় ছাত্রলীগ নেতা দাবি করে এলাকায় পোস্টার সাটিয়েছে। চাঁদাবাজি ও মানুষকে বিভিন্নভাবে হয়রানি করে আসছে। কেউ মুখ খুলে প্রতিবাদ করার সাহস পায় না।

আশুলিয়া থানা যুবলীগ সভাপতি কবির সরকার বলেন, ওই এলাকায় আসলাম নামে ছাত্রলীগ করে এমন কোনো নেতা আছে বলে তার জানা নেই। ছাত্রলীগের সাথে আসলামের কোনো সম্পর্ক নেই বলে স্থানীয় ছাত্রলীগ থেকে নিশ্চিত হয়েছি।

পিটুনিতে আহত হোসনে আরার বাবা হারুন-অর-রশিদ ইউএনবিকে বলেন, ‘ঘটনার দিন বিকালে তার কলাই ক্ষেতে গরু বেঁধে কলাই খাওয়াচ্ছিল আসলামের মা শাহানা বেগম। হোসনে আরার মা (খোদেজা বেগম) প্রতিবাদ করলে তাদের দু’জনের মধ্যে বাক-বিতন্ডা হয়।’

তিনি বলেন, এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে আসলাম আমার বাড়িতে গিয়ে স্ত্রী খোদেজাকে লাঠি দিয়ে পিটিয়ে বাম হাত ভেঙে দেয়। এসময় মাকে বাঁচাতে গেলে মেয়ে হোসনে আরাকেও পিটিয়ে তার ডান হাত ভেঙে দেয় ওই বখাটে।

মা-মেয়েকে উদ্ধার করে প্রথমে গণস্বাস্থ্য হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে সেখান থেকে তাদের ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে রেফার্ড করা হয়।

‘মেয়ে হোসনে আরা নাল্লাপোল্লা আদর্শ ইসলামিয়া সিনিয়র বহুমুখী মাদ্রাসা থেকে এ বছর দাখিল পরীক্ষার্থী ছিল। ২ ফেব্রুয়ারি থেকে পরীক্ষা শুরু হলেও ডান হাত ভাঙার কারণে এবং হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থাকায় এ বছর আর মেয়ের পরীক্ষা দেয়া হলো না’, বলেন বাবা।

তিনি আরও বলেন, আসলাম, তার বাবা আজেল মিয়া, আসলামের স্ত্রী সুমী ও আসলামের মা শাহানাকে বিবাদী করে হোসনে আরার নানা শামসুল হক আশুলিয়া থানায় পরদিন ২৯ জানুয়ারি একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

পরে এ বিষয়ে আশুলিয়া থানার এসআই ফুল মিয়া ঘটনাস্থল পরিদর্শন করলেও আসামিদের বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা নেয়া হয়নি। বরং থানায় দেয়া লিখিত অভিযোগ তুলে নিয়ে আসার জন্য আসলামের পরিবার আমাদের হুমকি-ধমকি দিয়ে আসছে।

ভুক্তভোগীদের অভিযোগ, পুলিশ অর্থের বিনিময়ে ঘটনাটি ধামাচাপা দেয়ার চেষ্টা করছে। এদিকে ঘটনার অভিযোগ দায়ের, থানার এসআই’র ঘটনাস্থল পরিদর্শন বিষয়ে জানতে চাইলে আশুলিয়া থানার ওসি রেজাউল করিম দীপু বলেন, এ বিষয়টি সম্পর্কে তার ‘কিছু জানা নেই্’।

অপরদিকে আহত হোসনে আরার সহপাঠিরা রবিবার সকালে নাল্লাপোল্লা আদর্শ ইসলামিয়া সিনিয়র বহুমুখী মাদ্রাসার মাঠে দোষীদের বিচারের দাবিতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল করেছে। এছাড়া দোষীরা গ্রেপ্তার না হওয়ায় তারা ক্ষোভ প্রকাশ করেছে।

সময়ের ধারা নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © somoyerdhara.com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com