শনিবার, ১৪ ডিসেম্বর ২০১৯, ০৮:০১ পূর্বাহ্ন

কোরআনের আলোকে জীবন গঠন করতে হবে : ধর্ম প্রতিমন্ত্রী

কোরআনের আলোকে জীবন গঠন করতে হবে : ধর্ম প্রতিমন্ত্রী

ধর্ম প্রতিমন্ত্রী শেখ মো. আব্দুল্লাহ বলেছেন, ‘কোরআন হলো মুসলমানদের সংবিধান। এই সংবিধানের আলোকে আমাদের জীবন গঠন করতে হবে।’

আজ শুক্রবার জাতীয় বায়তুল মোকাররমে আন্তর্জাতিক কোরআন তিলাওয়াত সংস্থার (ইকরা) ১৯তম আন্তর্জাতিক কিরাত সম্মেলনে এসব কথা বলেন প্রতিমন্ত্রী।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে মুক্তিযুদ্ধ শুরু হয়। এ দেশকে তিনি হানাদার বাহিনী মুক্ত করে ছিলেন। বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠা হওয়ার পরই তিনি ইসলামী ফাউন্ডেশন প্রতিষ্ঠা করেন। সেই ধারাবাহিকতায় ইকরা প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে এ মহতি অনুষ্ঠান শুরু হয়েছে। বিদেশি মেহমানরা এখানে কোরআন তেলাওয়াত করবেন এতে মানুষের ঈমান ও আমল বৃদ্ধি করার সুযোগ হবে।’

শেখ মো. আব্দুল্লাহ বলেন, ‘আমি খুবই খুশি হয়েছি এজন্য যে, এ সম্মেলনে বিশ্বের শ্রেষ্ঠ কারিরা অংশ নিয়েছে। তাঁদেরকে আমরা বাংলাদেশ সরকারের পক্ষ থেকে অভিনন্দন জানাচ্ছি। যারা সারা বছর কষ্ট করে এ অনুষ্ঠান পরিচালনা করছেন তাদেরকে ও ধন্যবাদ জানাচ্ছি।’

অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন, ইসলামী ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান শামীম আফজাল, পিএচপি গ্রুপের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব সুফি মুহাম্মদ মিজানুর রহমান।

বিশেষ অতিথি শামীম আফজাল বলেন, ‘বঙ্গবন্ধুর গড়া এ প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে পবিত্র কোরআনের খেদমত করার তৌফিক দিয়েছেন। আমি বলবো পবিত্র কোরানকে বুকে ধরে রেখে ওলামায়ে কেরাম একত্রিত থাকলে তাদের বিজয় কেউ ঠেকাতে পারবে না।’

পিএচপি গ্রুপের চেয়ারম্যান সুফি মুহম্মদ মিজানুর রহমান বলেন, ‘বর্তমান সরকার দুর্নীতির বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স ঘোষনা করেছে। আমরা যদি কোরআনের আলোকে এ দুর্নীতি সমাজ গঠন করতে পারি। তাহলে মুসলমানদের পথচলা সবসময় সহজ হবে।’

এ বছর ইরানের ক্বারী হামীদ শাকের নেজাদ, তুরস্কের ইয়শার চৌহাদার ও মিসরের ইয়াসির মাহমুদ সারকাওই, দক্ষিণ আফ্রিকারর আব্দুর রহমান সাদিয়ান, ফিলিপাইনের কারি নোমান ফিম বায়া বায়া তেলাওয়াত করেন । অনুষ্ঠানে তাঁদের ক্রেস্ট প্রদান করা হয়।

১৯৬৬ সাল থেকে শুরু হওয়া এই ঐতিহ্যবাহী সম্মেলনের মাধ্যমে বিশুদ্ধ কোরআন তেলাওয়াতের রেওয়াজ বাংলাদেশে চালু হয়েছিল প্রয়াত হজরত মাওলানা ক্বারী মুহাম্মদ ইউসুফের (র.) হাত ধরে। কারি মুহাম্মদ ইউসুফ (র.) ছিলেন ইকরার প্রতিষ্ঠাতা এবং বাংলাদেশের সাবেক প্রধান কারি।

এই বছর সম্মেলনে সভাপতিত্ব করবেন বর্তমানে বাংলাদেশের প্রধান কারি শাইখ আহমাদ বিন ইউছুফ আল আজহারী। এবারে সম্মেলনের পৃষ্ঠপোষকতায় রয়েছে পিএইচপি গ্রুপ এবং সার্বিক সহযোগিতায় রয়েছে ইসলামিক ফাউন্ডেশন।

১৯৯১ সালে বাংলাদেশের সাবকে প্রধান শাইখ মাওলানা কারি মুহাম্মদ ইউসুফ (র.) কর্তৃক আন্তর্জাতিক কোরআন তিলাওয়াত সংস্থা প্রতিষ্ঠিত হওয়ার পর থেকে ইকরা বিগত ২৭ বছরে ১৮ বার আন্তর্জাতিক কিরাত সম্মেলনের আয়োজন করেছে।

সময়ের ধারা নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © somoyerdhara.com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com