বৃহস্পতিবার, ০৯ Jul ২০২০, ০১:০৯ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
লক্ষ্মীপুরে কিন্ডারগার্টেন এসোসিয়েশনের মানববন্ধন ও অবস্থান কর্মসূচি-সময়ের ধারা মিথ্যা সংবাদ নিয়ে মুখ খুললেন দৈনিক সরেজমিন বার্তার সম্পাদক বেলাল হোছাইন ভূঁইয়া সিনিয়র সাংবাদিক কাজী আবুল মনসুর রোটারী ক্লাব অব রয়েলস এর প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত পূরণ করা হচ্ছে এন্ড্রু কিশোরের শেষ ইচ্ছা এখন পর্যন্ত আলিয়ার জীবনে এসেছে ৫ জন পুরুষ ৩ দুলাভাইয়ের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ, নবজাতক কোলে থানায় কিশোরী বান্দরবানে দুপক্ষে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ, নিহত ৬ এবার ‘ময়লা-দুর্গন্ধযুক্ত’ পানির ভূতুড়ে বিল ওয়াসার শোলাকিয়ায় জঙ্গি হামলা: সাক্ষ্য গ্রহণে আটকে আছে বিচার কার্যক্রম মাশরাফির স্ত্রী সুমিও করোনায় আক্রান্ত
জাপা মহাসচিবের বক্তব্যের প্রতিবাদ জানালো ডাকসু নেতা

জাপা মহাসচিবের বক্তব্যের প্রতিবাদ জানালো ডাকসু নেতা

মোহাম্মদ মাকসুদুল হাসান ভূঁইয়া রাহুল :
স্বৈরাচারবিরোধী আন্দোলনের অন্যতম নেতা শহীদ নূর হোসেনকে নিয়ে জাতীয় পার্টির মহাসচিব মশিউর রহমান রাঙ্গার করা নেতিবাচক মন্তব্যের তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু)’র স্বাধীনতা সংগ্রাম ও মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক সাদ বিন কাদের চৌধুরী।

সোমবার (১১ নভেম্বর, ২০১৯) এক প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে ডাকসু’র পক্ষে তিনি এই প্রতিবাদ জানান।

প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, প্রতি বছর ১০ নভেম্বর স্বৈরাচার বিরোধী আন্দোলনের অন্যতম নেতা শহীদ নূর হোসেনের স্মৃতি স্মরণে সারাদেশে পালিত হয় নূর হোসেন দিবস। শহীদ নূর হোসেন বাংলাদেশের গণতান্ত্রিক আন্দোলনের স্মরণীয় ব্যক্তিত্ব। ১৯৮৭ সালের ১০ নভেম্বর তৎকালীন রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদের স্বৈরাচারী শাসন ব্যবস্থার বিরুদ্ধে সংগঠিত গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার আন্দোলন চলাকালে পুলিশের গুলিতে শহীদ হন।

বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়, শহীদ নূর হোসেন ঢাকা জেলা আওয়ামী মটর চালক লীগের বনগ্রাম শাখার প্রচার সম্পাদকের দায়িত্বে ছিলেন। শহীদ নূর হোসেনের মৃত্যুর পর স্বৈরাচার বিরোধী আন্দোলন আরো বেগবান হয়ে ওঠে। যার ফলশ্রুতিতে পদত্যাগে বাধ্য হন হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ। ১৯৯৬ সালে মহান জাতীয় সংসদে এরশাদ নূর হোসেনের মৃত্যুর জন্য ক্ষমা প্রার্থনা করেন।

রোববার (১০ নভেম্বর, ২০১৯) নূর হোসেন দিবসে জাতীয় পার্টির বনানী কার্যালয়ে আয়োজিত একটি অনুষ্ঠানে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান জি এম কাদের এর উপস্থিতিতে জাতীয় পার্টির মহাসচিব মশিউর রহমান রাঙ্গা শহীদ নূর হোসেনকে ইয়াবাখোর, ফেনসিডিলখোর বলে যে বিতর্কিত মন্তব্য করেছেন এবং স্বৈরাচার বিরোধী আন্দোলনের একজন শহীদকে যেভাবে অপমান ও অশ্রদ্ধা করেছেন সে জন্য ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানায়। একই সাথে মশিউর রহমান রাঙ্গা’কে তার এই বক্তব্য প্রত্যাহার ও জাতির কাছে প্রকাশ্যে ক্ষমা চাওয়ার আহবান জানায় ডাকসু।

শুধু তাই নয়, জাপা মহাসচিবের বক্তব্যের প্রতিবাদ করা গণতন্ত্রকামী প্রতিটি মানুষের দায়িত্ব মনে করেন এই ডাকসু নেতা বলে বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়।

উল্লেখ্য, বাংলাদেশের গণতান্ত্রিক আন্দোলনে স্মরণীয় ব্যক্তিত্ব শহীদ নূর হোসেন। ১৯৮৭ সালের ১০ নভেম্বর তৎকালীন বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদের স্বৈরাচারী শাসন ব্যবস্থার বিরুদ্ধে সংগঠিত গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার আন্দোলন চলাকালে পুলিশের গুলিতে নিহত হন তিনি।

সময়ের ধারা নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © somoyerdhara.com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com