বৃহস্পতিবার, ২৮ মে ২০২০, ০২:৪৫ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
হাটহাজারীর উদালিয়াতে সন্ত্রাসীর রাজত্ব কায়েম করতে যুবককে রক্তাক্ত জখম লক্ষীপুর বাসীকে মার্কেন্টাইল ইসলামী লাইফ ইন্স্যুঃ পক্ষ থেকে ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা লক্ষীপুর বাসীকে জেলা মানবাধিকার সংস্থার পক্ষ থেকে ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা-সময়ের ধারা লক্ষীপুর বাসীকে কাজী নাঈমের পক্ষ থেকে ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা-সময়ের ধারা লক্ষ্মীপুরে’পত্রিকা হকারদের মাঝে ঈদ উপহার বিতরণ করেন জেলা মানবাধিকার সংস্থা-সময়ের ধারা ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন মুজাহিদুল ইসলাম-সময়ের ধারা লক্ষ্মীপুরে এ বি এম গোফরান হোসেন বাবুর ঈদ উপহার-সময়ের ধারা লক্ষীপুর জেলা মানবাধিকারের পক্ষ থেকে,পত্রিকা হকারদেরকে ঈদ উপহার-সময়ের ধারা ওমানে হাটহাজারীর এক প্রবাসীর মৃত্যু ! ১ মাসের বেতন পুরোটাই দরিদ্রদের মাঝে বিলিয়ে দিলে সিভিল ইঞ্জিনিয়ার রুবেল
রাজনৈতিক প্রতিহিংসার শিকাড় হয়েও নিজ উদ্যোগে মাননীয় আইনমন্ত্রীর পক্ষে তসলিমুর রেজা ও মঞ্জুর আলমের ত্রাণ বিতরণ

রাজনৈতিক প্রতিহিংসার শিকাড় হয়েও নিজ উদ্যোগে মাননীয় আইনমন্ত্রীর পক্ষে তসলিমুর রেজা ও মঞ্জুর আলমের ত্রাণ বিতরণ

মো: সাইদুল ইসলাম, কসবা থেকে : কিংবদন্তি শিল্পী ভূপেন হাজারিকা গেয়েছিলেন কালজয়ী গান : ‘মানুষ মানুষের জন্য/জীবন জীবনের জন্য/একটু সহানুভূতি কি/মানুষ পেতে পারে না, ও বন্ধু।’ এই গানটি অনেকেরই মনে আছে নিশ্চই? মানুষের বিপদে যুগে যুগে এগিয়ে এসেছে মানুষ। বাড়িয়ে দিয়েছে সহযোগিতার হাত। মানুষ সহমর্মিতায় বাঁচিয়েছে মানুষের জীবন। তাঁদের মতই একজন কসবা উপজেলা আওয়ামীলীগের প্রাণ তসলিমুর রেজা। তিনি একজন সৎ, সাহসী ও ন্যায়ের প্রতীক, নির্যাতিত সাবেক ছাত্রনেতা ও ব্রাক্ষণবাড়িয়া জেলা যুবলীগের বর্তমান কার্যকারী সদস্য।
করোনাভাইরাস বৈশ্বিক মহামারি আকারে ছড়িয়ে পড়েছে। বাংলাদেশেও করোনাভাইরাসের সংক্রমন বেড়েই চলছে। এমন সংকটের সময় সামাজিক দূরত্ব মেনে কসবা-আখাউড়ায় অসহায় মানুষের পাশে থেকে নিজ উদ্যোগে এবং ব্যক্তিগত তহবিল থেকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন জনাব তসলিমুর রেজা ও মঞ্জুর আলম।

৩১ শে মার্চ সর্বপ্রথম তসলীমুর রেজার নিজ বাংলো থেকে পোপীনাথপুর গ্রামবাসির ও আশে পাশের কয়েকটা গ্রামে হতদরিদ্রদের মাঝে শতাধিক পরিবারকে খাদ্য সামগ্রী প্রদান করেন।
এ ছাড়াও ২২ এপ্রিল কসবা চন্ডিদ্বার, মজলিশ পুর থেকে আশে পাশের কয়েকটা গ্রামে এসব ত্রাণ বিতরণ কার্যক্রম পরিচালনা শুরু করেন “পোর হেল্পলেস ওয়েলফেয়ার ফাউন্ডেশন” এর প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারম্যান এবং মহাসচিব, মাননীয় আইনমন্ত্রী জনাব আনিসুল হক এর আস্থাভাজন জনাব তসলিমুর রেজা ও মন্জুর আলম।

করোনাভাইরাসের এই প্রাদুর্ভাবে কসবা-আখাউড়ায় সর্ব প্রথম নিম্ন আয়ের লোকজন এবং ক্ষতিগ্রস্ত হতদরিদ্র মানুষের মুখে দুমুঠো খাবার তুলে দেওয়ার জন্য ব্যক্তিগত উদ্যোগে মাননীয় আইন মন্ত্রী জনাব আনিসুল হক এর পক্ষে পুর Poor helpless welfare foundation এর মাধ্যমে ত্রাণ বিতরণ কার্যক্রম শুরু করেন তিনি। পরবর্তিতে তাঁরই সংগঠন “পোর হেল্পলেস ওয়েলফেয়ার ফাউন্ডেশন” এর মাধ্যমে বন্ধু বান্ধবদের কাছ থেকে সামান্য অর্থ সহযোগিতা নিয়ে হতদরিদ্র জনগণের মাঝে প্রতিনিয়ত খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করে আসছেন এই সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারম্যান জনাব তাসলিমুর রেজা ও মন্জুর আলম !

জানা গেছে, বেসরকারিভাবে এবং ব্যক্তিগত উদ্যোগে জনগণের সেবক, জনাব আনিসুল হক মাননীয় মন্ত্রী, আইন বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রণালয় এবং জাতীয় সংসদ সদস্য, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৪ এর পক্ষে কসবা আখাউড়ায় প্রথম ত্রাণ বিতরণ কার্যক্রম শুরু করেন জনাব তাসলিমুর রেজা।

তাসলিমুর রেজার কাছে এ বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, করোনাভাইরাস প্রতিরোধে অঘোষিত লকডাউনে অসহায় দরিদ্র মানুষের মাঝে আমার নিজ উদ্যোগে এবং ব্যক্তিগত অর্থায়নে বিগত বছরগুলিতে বঞ্চিত হয়েও মাননীয় আইন মন্ত্রী মহোদয়ের পক্ষে অসহায় মানুষের পাশে দাড়াতে পেরে আমি আনন্দিত।

তিনি আরও বলেন, বিগত দিনে রাজনৈতিক অনেক নির্যাতিত হয়েও বৈশ্বিক মহামারী করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের এই সময়ে ঘরে না থেকে রাজনৈতিক ভাবে আমি মাননীয় আইনমন্ত্রী জনাব আনিসুল হক সাহেবের স্বপক্ষে দরিদ্রদের মাঝে নিজ উদ্যোগে এবং ব্যক্তিগত তহবিল থেকে ত্রাণ বিতরণ কার্যক্রম শুরু করি।

তিনিই একমাত্র নেতা যিনি তার চিন্তা চেতনায় সারাক্ষণ বঙ্গবন্ধুুর নীতি আদর্শকে ধারন করে রাজনীতি করেন, যার কারনে তৃণমুলে রয়েছে তার বিশাল গ্রহনযোগ্যতা।

সময়ের ধারা নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © somoyerdhara.com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com