শনিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২১, ০১:৫৩ অপরাহ্ন

দাফন করতেও দিচ্ছে না তালেবান, বলছে ‘তার লাশ পচুক’

দাফন করতেও দিচ্ছে না তালেবান, বলছে ‘তার লাশ পচুক’

আফগানিস্তানের সাবেক ভাইস প্রেসিডেন্ট আমরুল্লাহ সালেহ’র ভাই রোহুল্লাহ আজিজিকে হত্যার পর তালেবানরা তাকে দাফন করতেও দিচ্ছে না বলে তার পরিবারের এক সদস্য অভিযোগ করেছেন। বার্তা সংস্থা রয়টার্সের খবরে বলা হয়, গতকাল শুক্রবার তার ভাতিজা তালেবানের হাতে চাচার মৃত্যুর খবর জানান।

তালেবানবিরোধী গোষ্ঠীগুলোর নিয়ন্ত্রণে থাকা আফগানিস্তানের শেষ প্রদেশ পানশিরের রাজধানী বাজারাকের পতনের কয়েকদিন পর রোহুল্লাহকে হত্যার এ খবর এলো। রোহুল্লাহ পানশির যুদ্ধে অংশ নেওয়া তালেবানবিরোধী বাহিনীর অন্যতম নেতা ছিলেন।

শুক্রবার রয়টার্সকে পাঠানো এক বার্তায় এবাদুল্লাহ সালেহ বলেন, ‘তারা আমার চাচাকে হত্যা করেছে। গতকাল তারা তাকে মেরে ফেলে। তারা তাকে দাফন করতেও দিচ্ছে না। তার লাশ পচুক, এমনটাই বলে যাচ্ছে তারা।’

তালেবানের তথ্য সেবা কেন্দ্র আলেমারাহর উর্দু ভাষার অ্যাকাউন্ট থেকে বলা হয়েছে, তাদের কাছে থাকা খবর অনুযায়ী রোহুল্লাহ পানশিরে যুদ্ধে মারা পড়েছেন। তবে টোলো নিউজের এক সাংবাদিক জানিয়েছেন, পানশির থেকে পালানোর চেষ্টাকালে রোহুল্লাহ তালেবান যোদ্ধাদের হাতে আটক হন। পরে তাকে হত্যা করা হয়।

রোহুল্লাহ’র ভাই, গত মাসে ক্ষমতাচ্যুত আফগানিস্তানের পশ্চিমা সমর্থিত সরকারের গোয়েন্দা সংস্থা ন্যাশনাল ডিরেক্টরেট অব সিকিউরিটির সাবেক প্রধান আমরুল্লাহ সালেহকে তালেবানরা এখনো ধরতে পারেনি। সালেহ এখন ঠিক কোথায় আছেন, তাও স্পষ্ট নয়।

তালেবানবিরোধী বাহিনীগুলো আহমাদ মাসুদের নেতৃত্বে ন্যাশনাল রেজিস্ট্যান্স ফ্রন্টের (এনআরএফ) ব্যানারে পানশিরে প্রতিরোধ যুদ্ধ করেছিল। কয়েকদিনের তুমুল লড়াই শেষে গত সপ্তাহে বাজারাকের নিয়ন্ত্রণ নেওয়ার ঘোষণা দেয় কট্টরপন্থি গোষ্ঠী তালেবান। পরে এনআরএফ জানায়, পানশিরের রাজধানীর পতন হলেও তালেবানের বিরুদ্ধে তাদের প্রতিরোধ যুদ্ধ অব্যাহত থাকবে।

 

সময়ের ধারা সংবাদটি শেয়ার করুন এবং আমাদের সাথে থাকার জন্য ধন্যবাদ

© All rights reserved © somoyerdhara.com
Desing by Raytahost.com